Home আন্তর্জাতিক সংবাদ হাস্যোজ্জ্বল সেলফিতে সৌদি বাদশাহ

হাস্যোজ্জ্বল সেলফিতে সৌদি বাদশাহ

সৌদি আরবের বাদশাহ সালমান বিন আবদুল আজিজ এক মাসের এশিয়া সফরে বেরিয়েছেন। আর এশিয়া সফরের শুরুর দিকেই বেশ কিছু সেলফি ও ভিডিওতে অংশ নিতে দেখা গেছে এবং তাতে বাদশাহকে অনেকটা হাস্যোজ্জ্বল ও দেখাচ্ছে। বাদশাহ সালমান গত বুধবার সফরের অংশ হিসেবে মালয়েশিয়া থেকে ইন্দোনেশিয়ায় পৌঁছান। সৌদি বাদশাহ সালমানের সঙ্গে মালয়েশিয়া ও ইন্দোনেশিয়ায় শীর্ষ কর্মকর্তাদের তোলা ছবি-ভিডিও প্রকাশের পর থেকেই অনলাইনে ব্যাপক সাড়া ফেলেছে।

মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী নাজিব রাজাকের সঙ্গে বাদশাহর একটি সেলফি টুইটারে দেখা যায়। এই সেলফিটি মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী টুইটারে দিয়েছিলেন।
এছাড়াও সেলফিটিতে বাদশাহর সাথে ইন্দোনেশিয়ায় সাবেক প্রেসিডেন্ট মেঘবতী সুকর্ণপুত্রী ও তাঁর মেয়ে বর্তমান মন্ত্রী পুয়ান মহারানির অংশ নিয়েছেন। এই সেলফিতে তাকে চনমনে ভঙ্গিতে পোজ দিতে দেখা যায়। পাশে দাঁড়িয়ে এই সেলফি তোলা দেখছিলেন প্রেসিডেন্ট উইদোদো। এতোমধ্যেই অনলাইনে সেলফিটি বেশ সাড়া ফেলেছে।
বাদশাহ সালমান গত বছর কাতারে ক্যানসার জয়ী এক কিশোরীর সঙ্গে সেলফিতে অংশ নেন। আর সেই সেলফিটিও ভাইরাল হয়েছিল।
এছাড়াও সৌদি বাদশার সঙ্গে নৈশভোজের ভিডিও করলেন ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট
সৌদি বাদশাহ সালমান বিন আবদুল আজিজ আল সউদের ইন্দোনেশিয়া সফরের বহর নিয়ে গত কদিন ধরে গণমাধ্যমে চলছে নানা আলোচনা। তবে এতে নতুন মাত্রা যোগ করেছে ইন্দোনেশিয়ার প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদোর এক ইউটিউব ভিডিও। জোকো উইদোদো সম্ভবত বিশ্বের একমাত্র রাষ্ট্রনায়ক যিনি তার প্রতিদিনের কাজকর্ম ভিডিও করে ইউটিউবে ছাড়তে পছন্দ করেন। এবার তিনি সৌদি বাদশাহর সঙ্গে তার নৈশভোজের ভিডিও ছেড়েছেন ইউটিউবে।

আর ভিডিওটিতে সবাইকে আসসালামু আলাইকুম জানিয়ে এই ভিডিওর রেকর্ডিং শুরু করছেন প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদো। এরপর দেখা যাচ্ছে প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদো তার মোবাইল ফোনের ক্যামেরার দিকে তাকিয়ে কথা বলছেন, আর পেছনের টেবিলে বসে খাচ্ছেন সৌদি বাদশাহ সালমান। এরপর সৌদি বাদশাহকেও ক্যামেরার দিকে তাকিয়ে কিছু বলতে দেখা যায়।
প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদোর এই ভিডিও ইন্দোনেশিয়ায় রীতিমত হৈচৈ ফেলে দিয়েছে। সোশ্যাল মিডিয়ায় ভিডিওটি শেয়ার করে তাতে মজার মন্তব্য করছেন অনেকে।
বিবিসি ইন্দোনেশিয়ার সোশ্যাল মিডিয়া প্রডিউসার ক্রিস্টিন ফ্রান্সিসকা বলছেন, প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদো ভিডিও ব্লগিং খুবই পছন্দ করেন। গত বছরের সেপ্টেম্বরে তিনি ‘ব্লগিং’ শুরু করেন। ফুটবল খেলা দেখতে স্টেডিয়ামে গিয়ে এমনকি রেস্টুরেন্টে খেতে গিয়েও তাকে ব্লগিং করতে দেখা যায়।

এন্ডা নাসুটিয়ান স্বীকার করছেন যে, প্রেসিডেন্ট জোকো উইদোদো যা করছেন তা ঠিক প্রচলিত রীতির বিরোধী।
‘কিন্তু এর মাধ্যমে তিনি আসলে নিজেকে এবং বাদশাহ সালমানকে এমনভাবে তুলে ধরতে চাইছেন যে তারাও আর দশজন সাধারণ মানুষের মতো। নিউজ মিডিয়ার সামনে একটা আনুষ্ঠানিক বিবৃতি দেয়ার চাইতে এটি অনেক বেশি কার্যকরী’।
এছাড়াও সৌদি বাদশাহ সালমান বিন আবদুল আজিজ আল সউদ দীর্ঘ এই সফরে তিনি ব্রুনাই, জাপান, চীন ও মালদ্বীপেও যাবেন।