Home বিনোদন ডেস্ক সুপারস্টার রজনীকান্ত এবার রাজনীতিতে-ও

সুপারস্টার রজনীকান্ত এবার রাজনীতিতে-ও

তামিলনাড়ু তথাপি পুরো ভারতবর্ষের অন্যতম একজন হলেন সুপারস্টার রজনীকান্ত, সম্প্রতি তার রাজনীতিতে পা রাখার গুঞ্জন ছড়ালেও তা নিয়ে এই তারকা মুখ খুললেন। অবশেষে এই তারকা তার দর্শকদের উদ্দেশ্যে বলেন যে রাজনীতিতে যাওয়ার কোনরকম চিন্তা ভাবনা নাকি নেই। কিন্তু এরপরেও রজনী দর্শকদের উদ্দেশ্য একটাই আর তা হলো তাদের সাথে নাকি আগামী ২ এপ্রিল বিশেষ মিটিং করবেন সুপারস্টার রজনীকান্ত।

তাছাড়া এই গুঞ্জনের কারন হিসেবে ধরা হচ্ছে যে মালয়েশিয়ার প্রধানমন্ত্রী ডাটো শ্রী নাজিব টান রাজাক-কেই কারন তিনি ভারতে মোদির উদ্দেশ্যে নয় তিনি নাকি স্বয়ং রজনীকান্ত-এর সঙ্গে দেখা করতে আসছেন। আর তাতেই সব ভক্তরা ধরেই নিয়েছেন সুপারস্টার রজনীকান্ত বুঝি এবার রাজনীতিতেও বাজিমাত করতে যাচ্ছেন। জানা যায়, মালয়েশিয়ায় যখন‘কাবালি’র শুটিং চলছিলো তখন নাকি রজনী প্রধানমন্ত্রীকে বিশেষ আমন্ত্রণ জানিয়েছিলেন। আর সূত্রে জানা যায়,রজনীকে মালয়েশিয়া সরকার তাদের ট্যুরিজমের ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডার করতে চান।

এছাড়াও শুধু ভক্তদের মুখের কথাই নয় এখন তামিলনাড়ু জুড়ে নাকি এই তারকার বেশ কিছু পোস্টারও পড়েছে,আর ঐসব পোস্টারেও নাকি রজনীর রাজনীতিতে যোগ দেয়ার ইঙ্গিত রয়েছে। এই তারকা যেন বাস্তবেই রাজনীতিতে সক্রিয় ভাবে যোগদান করে তামিলনাড়ুকে বাঁচান এই চাওয়াই এখন অনেক ভক্তের।

এই তারকা ভারতের বিভিন্ন সময় বিভিন্ন রাজনৈতিক দলকে সাপোর্ট করলেও কখনোই সক্রিয় রাজনীতিতে যোগ দেননি,বরং নিজের অভিনয়কেই প্রথম প্রায়োরিটি দিয়েছেন। রজনীর ঘনিষ্ঠ সূত্রের দাবি, এখনও পর্যন্ত এটা গুজব। তাঁর মুখমাত্র জানিয়েছেন, বছরে একবার করে ভক্তদের সঙ্গে দেখা করেন রজনী। বিভিন্ন জেলা থেকে তার ভক্তরা চেন্নাই যান তারকার সঙ্গে দেখা করতে। আর এটাও সেই বার্ষিক মিটিং।

অবশ্য কালকের পরেই জানা যাবে এই সুপারস্টার কি করতে চলেছেন আর তিনি কি সত্যিই তামিল জনগণের এবং তার ভক্তদের ডাকে রাজনীতিতে যোগ দেবেন কিনা।